চাচার বিরুদ্ধে চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রীকে হাত-মুখ বেঁধে ধর্ষণের অভিযোগ

রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে এবার আপন চাচার বিরুদ্ধে এক চতুর্থ শ্রেণীর স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। বিষয়টি ওই ছাত্রীর মা স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের কাছে বিচার দিলেও কেউ এগিয়ে না আসায় জমি লিখে নিয়ে আপসের চেষ্টা চলছে বলে জানা গেছে।

সোনাপুর বাজারের মুদি দোকানি জানান, তার ছেলে মাজবাড়ী উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণীতে পড়ে, আর নাতনি বাড়ির অদূরে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রী।
তিনি জানান, বুধবার তার পুত্রবধু তার কাছে অভিযোগ করেছন যে তার মেয়েকে তিন দিন হাত-মুখ বেঁধে তাকে ধর্ষণ করা হয়েছে।
তিনি বলেন, অভিযোগ শোনার পর ছেলেকে শাসন করেছি। নবাবপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোঃ আবুল হাসান আলী আমার বাড়িতে গিয়ে বিষয়টি ভালোভাবে জানার চেষ্টা করেছেন। এছাড়া সোনাপুর বাজার বণিক সমিতির সভাপতি আজিজ ইকবালের কাছে আমি নিষ্পত্তির কথা বলেছি। তবে এ ব্যাপারে কেউ এগিয়ে আসেনি। এজন্য নাতনির নামে ৫ শতাংশ জমি লিখে দিব বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

ওই শিশুর মা বলেন, আমার শ্বশুরের সাথে আপস মীমাংসার কথা হয়েছে। তিনি মেয়ের নামে জমি লিখে দিতে চেয়েছেন। ঘটনার সত্যতাও স্বীকার করেছেন।
সোনাপুর বাজার বণিক সমিতির সভাপতি মোঃ আজিজ ইকবাল বলেন, যেহেতু শিশু নির্যাতনের ঘটনা, এ জন্য আমি বলেছি প্রশাসনের দ্বারস্থ হতে। ওই শিশুর মা ও দাদা আমার কাছে এসেছিল।
বালিয়াকান্দি থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মোঃ ওবায়েদুল হক বলেন, এ ধরনের কোনো অভিযোগ আমরা পাইনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

স্বাগতম

আপনাদের অনুপ্রেরণায় আমাদের পথচলা

অনলাইন নিউজ পোর্টাল সংবাদ সারদিন এর সাথে থাকার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।

shares