চলন্ত বাসে নার্সকে ধর্ষণের পর হত্যা : বিচার দাবিতে মানববন্ধন

কিশোরগঞ্জের কটিয়াদীতে চলন্ত বাসে ইবনে সিনা মেডিক্যাল কলেজের নার্স শাহিনুর আক্তার তানিয়াকে গণধর্ষণের পর হত্যার ঘটনার বিচার দাবিতে মানববন্ধন করেছেন তার সহকর্মী চিকিৎসক, নার্স ও ছাত্রছাত্রীরা।

আজ বুধবার দুপুর ১২টায় রাজধানীর কল্যাণপুরের ইবনে সিনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সামনে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন ইবনে সিনা মেডিকেল কলেজের সার্জারী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা: মো: মহিবুল আজিজ, এনাটমি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা: মো: হাবিবুর রহমান, মানসিক রোগ বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা: ফাহমিদা আহমেদ, মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ডি.জি.এম (অ্যাডমিন) মো: আশরাফুল ইসলাম, ইবনে সিনা নার্সিং ইনস্টিটিউটের অধ্যক্ষ আছিয়া বেগম, ইবনে সিনা নার্সিং ইনস্টিটিউটের এ.জি.এম (অ্যাডমিন) এ.কে.এম খোরশেদ আলম, ইবনে সিনা মেডিকেল কলেজের ম্যানেজার (অ্যাডমিন) মো: আমিনুর ইসলাম, ভাইস প্রিন্সিপ্যাল শিরিন সুলতানা, মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের কাস্টমার কেয়ার ইনচার্জ মো: বেলাল হোসাইন।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, নারীরা আজ সমাজে নিরাপত্তাহীন হয়ে পড়েছে। ঘরে-বাইরে, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, কর্মস্থল সর্বত্র নারীদের জন্য বিপদ ওঁৎ পেতে থাকে। ফলে নারীর অগ্রযাত্রায় নিরাপত্তাহীনতা আজ প্রধান অন্তরায় হয়ে উঠেছে।

বক্তারা তানিয়ার ধর্ষণকারী ও হত্যাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি ও বিচারের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

সংহতি প্রকাশ করে মানববন্ধনে অংশ নেন ইবনে সিনা মেডিকেল কলেজের চিকিৎসকবৃন্দ, ইবনে সিনা নার্সিং ইনস্টিটিউটের ছাত্র-ছাত্রী এবং স্বাধীনতা নার্সেস পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির মহাসচিব মো: ইকবাল হোসাইন প্রমুখ।

উল্লেখ্য, ইবনে সিনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সিনিয়র স্টাফ নার্স মোসা: শাহিনুর আক্তার তানিয়া গত সোমবার রাতে ছুটি নিয়ে স্বর্ণলতা নামক বাসে গ্রামের বাড়ি কিশোরগঞ্জ জেলার কটিয়াদির উদ্দেশে রওয়ানা দেন। যাওয়ার পথে ওই বাসের ড্রাইভার ও হেলপারসহ ৫/৬ জন বখাটে তাকে ধর্ষণের পর গলায় ওড়না পেঁচিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় ড্রাইভার নুরুজ্জামান (৩৯), হেলপার মিলন মিয়াকে (৩৩) আটক করে কটিয়াদী থানা পুলিশ ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

স্বাগতম

আপনাদের অনুপ্রেরণায় আমাদের পথচলা

অনলাইন নিউজ পোর্টাল সংবাদ সারদিন এর সাথে থাকার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।

shares