‘ধরপাকড়ের মাঝে ঐক্যফ্রন্টের ভরসা দেশের জনগণ’

ভয়-ভীতি, হামলা-মামলা, ধরপাকড়ের মধ্যেই নির্বাচনের মাঠে সক্রিয় বিএনপি ও জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। তারা মনে করছে ভোটাররা সঙ্গে থাকবে সব সময়। এ প্রসঙ্গে ঐক্যফ্রন্ট নেতা জগলুল হায়দার আফ্রিক বলেছেন, ‘ভোটের দিন ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থীদের এজেন্টশূন্য রাখতেই ধরপাকড় করা হচ্ছে।’ তিনি বলেন, ‘ঐক্যফ্রন্টের ভরসা দেশের জনগণ।’

শুক্রবার বিকেলে পল্টন টাওয়ারের সামনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন জগলুল হায়দার আফ্রিক।

আফ্রিক বলেন, ‘বৃহস্পতিবার রাত থেকে সারা দেশে পুলিশ-র‍্যাব চিরুনি অভিযান শুরু করেছে৷ এসবের মূল কারণ জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থীদের ভোটের দিন এজেন্টশূন্য রাখা। এভাবে গ্রেপ্তার-নির্যাতন করে ঐক্যফ্রন্টের অগ্রযাত্রা থামিয়ে রাখা যাবে না। ঐক্যফ্রন্টের ভরসা দেশের জনগণ।’

গণফোরামের এই নেতা বলেন, ‘আমরা ভোটারদের কাছে আহ্বান জানাই আপনারা নির্ভয়ে ৩০ ডিসেম্বর সকাল থেকে ভোটকেন্দ্রে আসবেন। নিজেদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন।’

জগলুল বলেন, ‘জনগণ সব ভয়ভীতি তুচ্ছ করে বীরের মতো ভোটকেন্দ্রে গিয়ে পছন্দের প্রার্থীকে বিজয়ী করবে ভোট দিয়ে। ৩০ ডিসেম্বর ভোটযুদ্ধে অংশ নিয়ে জনগণ আগ্রাসন মোকাবিলা করবে।’

সেনাবাহিনীর বিষয়ে তিনি বলেন, ‘আমরা আশা করছি, দেশের জনগণের গর্বের প্রতীক সেনাবাহিনী আগামীকাল ও ভোটের দিন ভোটের সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করে জনগণের ভোটাধিকার নিশ্চিত করবে বলে আমরা বিশ্বাস করি।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

স্বাগতম

আপনাদের অনুপ্রেরণায় আমাদের পথচলা

অনলাইন নিউজ পোর্টাল সংবাদ সারদিন এর সাথে থাকার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।

shares